সাহিন আক্তার কারিকর - এর কবিতা | মিহিন্দা

 

মৃত্যুর ব্ল্যাকহোল 


কংক্রিটের ফাটলে বটবীর্য ব্র্যান্ডের ফাল্গুন তরুণীর হাত নিয়ে খেলা করছে শরীরের ওপর
মাকড়সার ভিতরে লিঙ্গ বৈষম্য আন্দোলন 
তার পিছনে একটি নেংটি টিকটিকি ঘড়ির কাঁটা চোখ রেখে ঠিক ঠিক এর অপেক্ষায়
পিশাচের মৃত্যু মিছিল...

ক্যান্ডেল থেকে কন্ডোম 
বাঁশ খেলে কৃষ্ণ গামছা কোমরে বেঁধে ছুটত
রাধিকার রাত আর বাঁশির যৌবন সকাল হলে বাসি তরকারির মত পড়ে থাকত রাস্তায়।

এখনও ফুটপাতে অনেক বাচ্চা দেখি
তাদের ফ্লেবার নয়, অন্ন চাই মুচকি হাসির ফ্লাইং কিস্
নিতম্ব পাছার অনুভূতিক দূরত্বে মায়াবতী মৃত্যুর ব্ল্যাকহোল।


নষ্ট চাঁদের নামতা 



ক্রুসেডের আস্তাবল থেকে বেড়িয়ে আসছে ঘোড়া অথচ র্জীণ পরজীবীর উৎপাত দরজা জানালা বন্ধ জোনাকি সিঁড়ি বেয়ে নামছে নিচের দিকে---
অন্ধকারের হাত ধরে উঠে আসছে প্যারিস - হেলেন
ট্রয়ের দেওয়ালে পিঠ ঠেকে কবিতা লিখছে ট্রোজার হর্স ।মিথলজির হাত ধরে প্ল্যানর্চাট করে নামিয়ে আনা হল হেরা রক্তচক্ষু আর আফ্রোদিতি চোখে ভাসছে প্রনয়... 
অথচ গ্যালিলিওকে সমাজ দিল অন্ধত্ব। 

তবু চাতকের ন্যায় সূর্য চন্দ্র গ্রহ রাহূর দোষে ভর করে নরম মাংস ঝুলিয়ে দিচ্ছে মাদুলি, 
স্মৃতির গলায় দড়ি দিয়ে, শরীর উপত্যকায় নেমেছে রক্তঝর্না।

ফুটপাত থেকে সস্তা চটি হাঁটতে হাঁটতে শেরশাহ রোড ধরে ইফ্ ও হাওয়ায় গোরস্তান পার হলেই 
ফ্ল্যাশ লাইটহাউসে জ্বলবে শরীর! 


1 মন্তব্যসমূহ

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

নবীনতর পূর্বতন